শুক্রবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১১:১৮ অপরাহ্ন

কোনোভাবেই থামানো যাচ্ছেনা কুষ্টিয়ার অবৈধ ভারগন টোব্যাকোকে

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • প্রকাশিত: সোমবার, ২৪ আগস্ট, ২০২০
কোনোভাবেই থামানো যাচ্ছে না কুষ্টিয়ার অবৈধ ভারগন টোব্যাকোকে

ঢাকার এস. এ পরিবহন কুরিয়ার সার্ভিসের অফিস থেকে যশোর ভ্যাট কমিশনারেটের অন্তর্গত কুষ্টিয়ার ভারগন টোব্যাকো কর্তৃক উৎপাদিত বিপুল পরিমাণের ভ্যাট চালানবিহীন নকল সিগারেট আটক করা হয়েছে। ২৩ আগস্ট (রবিবার) ঢাকার শান্তিনগর এস. এ পরিবহনের ডিপো থেকে ভ্যাট গোয়েন্দা অধিদপ্তর এই নকল অবৈধ সিগারেটের চালানটি জব্দ করে।

আটককৃত মোট সিগারেটের পরিমাণ ছিলো ৩,৫০,০০০(তিন লাখ পঞ্চাশ হাজার) শলাকা। এগুলো ভারগন টোব্যাকোর সিজার ব্রান্ডের নকল সিগারেট। আটককৃত সিগারেটগুলোর বাজারমূল্য প্রায় ১৫ লাখ টাকা। এসএ পরিবহনের গাড়িতে কুষ্টিয়ার ভারগন টোব্যাকোর নকল সিগারেটের এই চালানটি ঢাকায় পৌঁছায়। জানাগেছে অবৈধ সিগারেটের এই চালানটি যাওয়ার কথা ছিলো নোয়াখালীর চৌমুহনী এলাকায়।

ভ্যাট গোয়েন্দা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ড. মইনুল খান বলেন, “ঢাকার শান্তিনগর এসএ পরিবহনের ডিপোতে নকল ব্যান্ডরোলসহ অবৈধ সিগারেট এসেছে এমন সংবাদের ভিত্তিতে আমরা অভিযান পরিচালনা করেছি। মূসক চালান সাথে না থাকায় ও ব্যান্ডরোল নকল প্রতীয়মান হওয়ায় এসব সিগারেট জব্দ করা হয়েছে।”

কুষ্টিয়ার ভারগন টোব্যাকোর বিষয়ে জানতে চেয়ে যশোর ভ্যাট কমিশনার জনাব মো. জাকির হোসাইনকে কয়েকবার ফোন করা হলেও তাকে ফোনে পাওয়া যায়নি। ভ্যাট কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে যে, ভ্যাট আইন অনুযায়ী পার্সেলটির যথাযথ ভ্যাট চালান ছিল না। এছাড়াও চালানের সিগারেট প্যাকেটগুলোতে ব্যবহ্নত ব্যান্ডরোলগুলো স্বীকৃত ইউভি-রে প্রয়োগ করে প্রাথমিকভাবে নকল বলে নিশ্চিত হয়েছে। তবে অধিকতর তদন্তে আটককৃত সিগারেটগুলো সিকিউরিটি এন্ড প্রিন্টিং প্রেসে পাঠানো হবে। বর্তমানে আটককৃত অবৈধ নকল সিগারেটগুলো নিজেদের হেফাজতে রাখার জন্য ভ্যাট গোয়েন্দা অফিসে আনা হয়েছে। আরো অনুসন্ধানের পর সংশ্লিষ্টদের আইনের আওতায় আনা হবে।

এদিকে ভ্যাট চালান ব্যতীত সিগারেট পরিবহন করার দায়ে এসএ পরিবহনকেও আইনের আওতায় আনা হবে বলে জানিয়েছে ভ্যাট কর্তৃপক্ষ। উল্লেখ্য সিগারেট পরিবহনের ক্ষেত্রে সকল কুরিয়ার সার্ভিসকে বাধ্যতামূলক ভ্যাট চালান সাথে রাখার নির্দেশ দিয়েছে এনবিআর। এর আগে গতবছর ২৩ ডিসেম্বর কুষ্টিয়ার জেলা প্রশাসন ও র‌্যাব-১২ একটি অভিযান চালিয়ে ভারগন টোব্যাকোর ২০,০০,০০০ (বিশ লাখ) শলাকা অবৈধ সিগারেট ও ৫,০০০ (পাঁচ হাজার) পিস নকল ব্যান্ডরোল জব্দ করে।

জব্দকৃত নকল সিগারেট

এছাড়াও এবছর ১৯ ফেব্রুয়ারি ভারগন টোব্যাকো কোম্পানিতে আবারও অভিযান পরিচালনা করে যশোর ভ্যাট কমিশনারেটের অন্তর্ভুক্ত কুষ্টিয়ার ভ্যাট কর্তৃপক্ষ। এই অভিযানের সময় ২৭,০০,০০০ (সাতাশ লাখ) শলাকা নকল সিগারেট, ২,০০,০০০ (দুই লাখ) পিস নকল ব্যান্ডরোল ও ২টি সিগারেট উৎপাদনের মেশিন জব্দ করে কারখানাটি সিলগালা করা হয়। জব্দকৃত মালামাল সমূহকে যশোর ভ্যাট কমিশনারেটের অফিসে নিয়ে যাওয়া হয়। এছাড়াও অবৈধ সিগারেট উৎপাদন ও বাজারজাত করায় ভ্যাট আইনের আওতায় ভারগন টোব্যাকোর বিরুদ্ধে ফৌজদারি মামলা দায়ের করা হয়।

আরো পড়ুনঃ ওমানের মোট প্রবাসী সংখ্যা জেনে নিন

আরো দেখুনঃ এক ক্লিকেই ওমানের সব খবর 

 

প্রবাস টাইম সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

রিলেটেড নিউজ
© 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | এই ওয়েবসাইটের লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি
Design by : NooR IT
www.ashrafalisohan.com
error: Content is protected !!