সোমবার, ৩০ নভেম্বর ২০২০, ১০:২৪ পূর্বাহ্ন

করোনার পরীক্ষা বন্ধ করলেই সংক্রমণ কমে যাবে: ট্রাম্প

  • প্রকাশিত: মঙ্গলবার, ১৬ জুন, ২০২০
  • ১৭১
করোনার পরীক্ষা বন্ধ করলেই সংক্রমণ কমে যাবে: ট্রাম্প

করোনার পরীক্ষা বন্ধ করলেই সংক্রমণ কমে যাবে, এমন মন্তব্য করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। তিনি বলেন, করোনাভাইরাস শনাক্তের পরীক্ষা বেশি হচ্ছে বলেই আমেরিকার বিভিন্ন রাজ্যে সংক্রমণ বেড়ে যাচ্ছে। এখনই টেস্টিং বন্ধ করলে দেখা যাবে সংক্রমণ হলেও খুবই অল্প হচ্ছে। ১৫ জুন বয়স্ক নাগরিকদের সহযোগিতাবিষয়ক এক সভায় প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প এসব কথা বলেন।

করোনাভাইরাস নিয়েও একেক সময়ে একেক কথা বলছেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। এর আগে তিনি বলেছেন, সারা বিশ্বের মধ্যে আমেরিকায় বেশি করে টেস্টিং হচ্ছে, এ কারণেই অন্য দেশের চেয়ে করোনায় সংক্রমিতের সংখ্যা আমেরিকায় বেশি।

১৫ জুন সকালে দেওয়া এক টুইটবার্তায় প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প বলেছেন, ‘অন্য দেশের চেয়ে আমাদের দেশে করোনার টেস্টিং ব্যাপক আকারে এবং উন্নত পদ্ধতিতে হচ্ছে (এটা আমরা খুব ভালো কাজ করছি)। এ কারণেই অনেক বেশি সংক্রমণ দেখা যাচ্ছে। টেস্টিং না হলে বা দুর্বল পদ্ধতিতে টেস্টিং হলে দেখা যেত, এই দেশে করোনা সংক্রমিত কোনো রোগীই প্রায় নেই।’ তিনি আরও বলেন, করোনার টেস্টিং হলো দুদিকে ধার দেওয়া তরবারি—এটা আমাদের খারাপ অবস্থাকে প্রকাশ্য করছে। অন্যদিকে, এটা একটি ভালো কাজ।’

হোয়াইট হাউসের কাছে করোনাভাইরাসের বিষয়টি এখন আর তেমন গুরুত্ব পাচ্ছে না; যদিও নতুন নতুন এলাকায় সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ছে। সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে কিছু কিছু এলাকায় নতুন করে লকডাউনের কথা উঠেছে। হোয়াইট হাউসের করোনাভাইরাস টাস্কফোর্স এ নিয়ে কোনো সংবাদ সম্মেলনও আর করছে না।

প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের পুনর্নির্বাচনের ঠিক আগে করোনা মহামারি অনেক কিছুই ওলট-পালট করে দিয়েছে। বিভিন্ন রাজ্যে তাঁর জনপ্রিয়তা এখন বেশ নিচের দিকে। আমেরিকার ভোটের রাজনীতিতে মধ্যপন্থী বা দোদুল্যমান ভোটারদেরই প্রধান শক্তি হিসেবে উঠে আসতে দেখা যায়। এসব মধ্যপন্থী ভোটারের কাছে তাঁর অবস্থা এখন মোটেই ভালো না। এদিকে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের সুরেই ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্স বলেছেন, পরিস্থিতির উন্নতি হচ্ছে। নাটকীয়ভাবে বেশি করে টেস্টিং করা হচ্ছে বলে সংক্রমণ বেশি দেখা যাচ্ছে।

আরও পড়ুনঃ ওমানে শ্রমিক অধিকার লঙ্ঘনের অভিযোগ

আমেরিকায় করোনা মহামারিতে এ পর্যন্ত ১ লাখ ১৮ হাজারের বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে। আরকানসাস, টেক্সাস, অ্যারিজোনা, অ্যালাবামা, ওকলাহোমা, ফ্লোরিডাসহ অন্তত ২০টি রাজ্যে সংক্রমণ বৃদ্ধি পাচ্ছে বলে নিউইয়র্ক টাইমসের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে। এসব বিবেচনা না করে সবকিছু স্বাভাবিক আছে বলে ট্রাম্প প্রশাসনের পক্ষ থেকে ধারণা দেওয়া হচ্ছে।

আরও দেখুনঃ প্রবাসীদের নিয়ে যা বললেন মিশা সওদাগর ও র‍্যাবের এই কমান্ডার 

প্রবাস টাইম সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

রিলেটেড নিউজ
© 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | এই ওয়েবসাইটের লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি
Technical Support By NooR IT
error: Content is protected !!