শুক্রবার, ৩০ অক্টোবর ২০২০, ০৪:০৪ অপরাহ্ন

অবশেষে বিচ্ছেদ হলো অভিনেতা অপূর্ব-অদিতির

  • প্রকাশিত: সোমবার, ১৮ মে, ২০২০
অবশেষে বিচ্ছেদ হলো অভিনেতা অপূর্ব-অদিতির

অবশেষে ভেঙে গেছে অভিনেতা জিয়াউল ফারুক অপূর্ব-নাজিয়ার ৯ বছরের সংসার। বনিবনা না হওয়ায় তাদের দাম্পত্য জীবনের বিচ্ছেদ ঘটল। ৯ বছরের সংসারে আয়াশ নামে তাদের একটি ছেলে সন্তান রয়েছে। রোববার (১৭ মে) বিকেলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সংসার ভাঙার খবর নিশ্চিত করেছেন নাজিয়া হাসান অদিতি। বিয়ে বিচ্ছেদ প্রসঙ্গে অপূর্বর সাথে যোগাযোগ করলেও তাকে পাওয়া যায়নি। অবশেষে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে রোববার দিনগত রাতে একটি স্ট্যাটাস দিয়ে বিচ্ছেদ প্রসঙ্গ তুলে ধরেন।

ফেসবুকে অপূর্ব লেখেন, আমাদের যাত্রাটি ছিল দুর্দান্ত। আমরা নয় বছর একে অপরের সবকিছু ভাগ করে নিয়েছি। বিচ্ছেদটা আমাকে কিছুটা হতবাক করে দিয়েছে। যদিও আমরা নিজের জন্য চেয়েছিলাম। তবে দুঃখের বিষয় এখানেই আজ আমাদের জীবন এনে দিয়েছে। এত বছর যাবত আমরা এক সাথে ছিলাম, আর সেই বছরগুলোতে সে সবসময় আমার দুর্দান্ত অংশীদার এবং সত্যিকারের শুভাকাঙ্ক্ষী ছিল। আমার অনেক সাফল্যের পেছনে মূল ভূমিকা পালন করেছে। সে সত্যিই একজন আশ্চর্য ব্যক্তি, একজন আত্মবিশ্বাসী উদ্যোক্তা এবং সর্বোপরি অত্যন্ত দয়ালু এবং মানবিক ব্যক্তি।

তিনি আরো লেখেন, আমার ক্যারিয়ারের অনেক অর্জন। তবুও আমার সর্বকালের সবচেয়ে বড় অর্জন সমসময় থাকবে- আমাদের ছেলে আয়াশ। পিতৃত্বের এই দুর্দান্ত উপহারের জন্য আমি নাজিয়াকে পর্যাপ্ত পরিমাণে ধন্যবাদ জানাতে পারব না। কারণ আমার সন্তানের অনুকরণীয় মা হয়েছেন। এবং আমাদের ছেলের প্রতিপালনের অংশীদার হিসাবে আমাদের যাত্রা সবসময় অব্যাহত থাকবে।

সহকর্মী ভক্তদের উদ্দেশে তিনি লেখেন, বিয়ের মতো বিষয়টি ভয়ঙ্কর, বিয়ে ভেঙে যাওয়ায় অনেক প্রশ্ন। সবাইকে অনুরোধ করব আমাদের জন্য আপনারা দোয়া করবেন, আমি এবং নাজিয়া যেন কঠিন সময়গুলো পার করতে পারি। দয়া করে আমাদের তিনজনকেই আপনারা দোয়া করবেন। আপনাকে, সকলকে ধন্যবাদ এবং আল্লাহ আমাদের সকলকে মঙ্গল করুন।

২০১০ সালের ১৯ আগস্ট অভিনেত্রী সাদিয়া জাহান প্রভাকে বিয়ে করেছিলেন অপূর্ব। যদিও এর পরের বছরের ফেব্রুয়ারিতেই ডিভোর্স হয়ে যায় তাদের। ওই বছরের ১৪ জুলাই অপূর্ব পারিবারিকভাবে নাজিয়া হাসান অদিতিকে বিয়ে করেন।

এদিকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অপূর্ব কেমন মানুষ ছিলেন তা জানিয়েছেন নাজিয়া। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে নাজিয়া হাসান অদিতি লেখেন, ‘দুর্ভাগ্যক্রমে আমাদের অসংখ্য কারণে আর একসাথে থাকছি না। তবে আমি তার জন্য সুখী ও সমৃদ্ধ জীবন কামনা করছি। অপূর্ব আমাকে আমার সন্তান আয়াশকে লালন করার জন্য সেরা উপহার দিয়েছেন।

অদিতি সাবেক স্বামীর প্রশংসা করে লেখেন, জিয়াউল ফারুক অপূর্ব বাবা হিসেবে একজন আশ্চর্য। কারো ভাই হিসেবে প্রেমময় এবং একজন পিতার কাছে দায়িত্বশীল। সবমিলিয়ে একজন ভালো মানুষ তিনি। তার অসংখ্য ফ্যানদের সাথে একটি সুপার টেলেন্টেড ব্যক্তি, তিনি নিজেই উপার্জন করেছেন। তিনি হলেন ঠিক সেখানেই তার যোগ্য। তার ব্যক্তিগত জীবন দিয়ে নয়, দয়া করে তার অসাধারণ কাজগুলি দ্বারা বিচার করুন। ভক্তদের আগের মতোই ভালোবাসতে বলে তিনি সাংবাদিকদের কাছে অনুরোধ করেন, দয়া করে এই বিষয়ে কোনও ‘ভুয়া’ সংবাদ প্রকাশ করবেন না। আমাদের সকলের জন্য প্রার্থনা করুন।

রোববার (১৭ মে) অপূর্ব-অদিতির বিবাহ বিচ্ছেদের পর থেকে একজন অভিনেত্রীর নাম ভেসে বেড়ায় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। এছাড়াও কয়েকটি সংবাদমাধ্যমে খবর প্রকাশ হয়। মূলত সেই খবরের সূত্র ধরেই রোববার দিনগত রাত ২টার দিকে নিজের ফেসবুক পেজের মাধ্যমে হুঁশিয়ারি দেন টিভি অভিনেতা অপূর্ব।

তিনি নিজের ফেসবুক পেজে লেখেন, ‘ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে গসিপ করা এবং তির্যক, মিথ্যা, বানোয়াট মন্তব্য করে তাদের কষ্ট বাড়িয়ে দেওয়ার মতো খারাপ কাজ গুলো থেকে সবাই বিরত থাকবেন। এবং এর মধ্যে রসালো কোন গল্প তৈরি করে সংবাদ করার চেষ্টা করবেন না, প্লিজ।’

অদিতি সম্পর্কে অপূর্ব লেখেন, ‘অত্যন্ত সম্মানের সাথে জানাচ্ছি, আমি এবং আমার স্ত্রী অদিতি অত্যন্ত শান্তিপূর্ণ সমাধানের মধ্যদিয়ে সম্পর্কের আইনগত ইতি টেনেছি। কোনও সংবাদমাধ্যম এই ব্যাপারটাতে তৃতীয় কাউকে জড়িয়ে কোনও ধরণের ভুল সংবাদ প্রকাশ করলে আমি তাদের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে ব্যবস্থা নেবো। ইতোমধ্যে আমি প্রকাশিত কিছু সংবাদের লিংক সংগ্রহ করেছি।’

আরও পড়ুনঃ ওমান প্রবাসীরা যেভাবে প্রতিযোগিতায় অংশ গ্রহণ করবেন

অপূর্ব অদিতির প্রসঙ্গ টেনে আরো লেখেন, ‘আমি অদিতিকে সম্মান করি এবং আজীবন করবো। সুতরাং কোনভাবেই অদিতিকে অসম্মান করে তার পাশে অন্য কারও নাম আমি সহ্য করবো না। ভুলে যাবেন না, অদিতি এখন আইনগত ভাবে আমার স্ত্রী না থাকলেও সে আমার সন্তানের মা।’

রোববার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে নয় বছরের বিবাহ বিচ্ছেদের বিষয়টি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অদিতি পোস্ট করার পরই ছড়িয়ে পড়ে। এমন ঘটনার দুই ঘণ্টা পর ফেসবুকে পুরো বিষয়টি নিয়ে মুখ খুললেন নাজিয়া হাসান অদিতি। যেখানে অপূর্বকে ঘিরেই লেখেন অদিতি। এরপর অপূর্ব নিজেদের বিচ্ছেদ প্রসঙ্গে পোস্ট দেন অপূর্ব।

প্রবাস টাইম সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

রিলেটেড নিউজ
© 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | এই ওয়েবসাইটের লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি
Design by : NooR IT
www.ashrafalisohan.com
error: Content is protected !!