শনিবার, ১৫ অগাস্ট ২০২০, ১০:১৩ পূর্বাহ্ন

মালয়েশিয়ায় সোমবার থেকে চালু হচ্ছে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান

  • প্রকাশিত: শনিবার, ২ মে, ২০২০
মালয়েশিয়ায় সোমবার থেকে চালু হচ্ছে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান

মহামারী করোনার প্রাদুর্ভাব কাটিয়ে উঠতে সোমবার থেকে পুরোদমে চালু হচ্ছে মালয়েশিয়ায় ব্যবসা প্রতিষ্ঠান। দেশের অর্থনীতি সচল রাখতে ও দেশবাসীর আয় রোজগারের কথা মাথায় রেখে টানা লকডাউনের সিদ্ধান্ত থেকে সরে এসেছে মালয়েশিয়া সরকার। গত মার্চের ১৮ তারিখ থেকে দেশটিতে লকডাউন শুরু হয়। আগামী ১২ মে পর্যন্ত তা পুরোদমে চালু থাকার কথা থাকলেও সেটি তুলে নেওয়া হচ্ছে।

আগামী সোমবার থেকে মালয়েশিয়ায় সব ধরনের ব্যবসা প্রতিষ্ঠান চালু করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে মুহিউদ্দিন ইয়াসিন সরকার। শুক্রবার মহান মে দিবস উপলক্ষে জাতির উদ্দেশে দেওয়া ভাষণে এ সিদ্ধান্তের কথা জানান প্রধানমন্ত্রী। তবে বেশ কিছু বিধিনিষেধের শর্তে ব্যবসায় প্রতিষ্ঠানগুলো থেকে লকডাউন তুলে নিচ্ছে সরকার।

মালয়েশিয়ায় বাংলাদেশ দূতাবাসের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, দেশটিতে ক্ষুদ্র (এসএমই) ব্যবসার আওতায় যে কয়টি প্রতিষ্ঠান আছে তা খোলা হতে পারে। সে ক্ষেত্রে খাবারের হোটেল, সেলুন, রেস্তরাঁ, মুদি দোকান ইত্যাদি খোলা হবে।

আরও পড়ুনঃ ওমানে আরও ৪০ ধরনের বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠান খুলতে যাচ্ছে

দূতাবাসের প্রথম সচিব হেদায়েতুল ইসলাম মণ্ডল বলেন, ‘দেশটির প্রধানমন্ত্রীর এ ভাষণে বাংলাদেশি ব্যবসায়ীদের জন্য একটি সুখকর বার্তা নিয়ে এসেছে। ৪০ দিনের বেশি সময় পর তারা ব্যবসা করতে পারবে। দূতাবাস এ ব্যাপারে সার্বিক খোঁজ খবর রাখছে।’

ভাষণে প্রধানমন্ত্রী মুহিউদ্দিন ইয়াসিন বলেন, ‘আগামী ৪ মে থেকে বেশিরভাগ ব্যবসা প্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়ার ঘোষণা দেওয়া হবে। তবে এ ক্ষেত্রে সরকার বেশকিছু শর্ত আরোপ করবে। ব্যবসায়ীদের সেগুলো মেনে চলতে হবে।’ তবে যেসব ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে বেশি মানুষের সমাগম ঘটে, সেগুলো এখনই খোলার অনুমতি দেওয়া হবে না বলেও মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী জানান।

করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব শুরুর পর থেকেই লকডাউন চালু হওয়ায় দেশের ব্যবসা-বাণিজ্য বন্ধ করে সরকার। এতে গত চারমাসে সরকারের ক্ষতি হয়েছে প্রায় ৬৩ বিলিয়ন রিঙ্গিত। বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের দাবি, এভাবে লকডাউন চালু থাকলে দেশের ব্যবসা-বাণিজ্য ধ্বস নামবে। বড় ধরনের ক্ষতির সম্মুখীনও হতে হবে। এ বিষয়ে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকও করেন সংশ্লিষ্টরা। তারপরই এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

মালয়েশিয়ার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) দ্বারা তদারকির মাধ্যমে সরকার স্ট্যান্ডার্ড অপারেটিং সিস্টেম (এসওপি) বাস্তবায়ন করে ব্যবসা প্রতিষ্ঠানগুলো চালু করবে। এর আগে গত ২৯ এপ্রিল থেকে মালয়েশিয়ার শিল্প-ব্যবসা প্রতিষ্ঠানগুলো খুলে দেয় সরকার। দেশব্যাপী মুভমেন্ট কন্ট্রোল অর্ডারের (এমসিও) সময়কাল চলাকালীন এ অনুমতি দেয় মুহিউদ্দিন ইয়াসিন সরকার।

 

প্রবাস টাইম সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।

রিলেটেড নিউজ
© 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | এই ওয়েবসাইটের লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি
Design by : NooR IT
www.ashrafalisohan.com
error: Content is protected !!